Current Date:June 24, 2021
গেমিং পিসি বিল্ড গাইড

৪৫ হাজার টাকার গেমিং পিসি বিল্ড গাইড-২০২১

৪৫ হাজার টাকার গেমিং পিসি বিল্ড গাইড ২০২১

আসসালামু আলাইকুম। কেমন আছেন সবাই, আসা করি সকলে ভালো আছেন আমিও আপনাদের দোয়া এবং আল্লাহ্‌র অশেষ রহমতে ভালো আছি। এটা আমাদের সাইটের প্রথম গেমিং পিসি বিল্ড গাইড, যদি কোনো ভুল ত্রুটি হয়ে থাকে তাহলে অবশ্যই ক্ষমা সন্দুর দৃষ্টিতে দেখবেন। আজকের এই আর্টিকেলে আমরা সাজিয়েছি ৪৫ হাজার টাকায় গেমিং পিসি, আজকের বাজেট গেমিং পিসি বিল্ড এবং বায়িং গাইডে আপনাকে স্বাগতম। ৪৫ হাজার টাকার গেমিং পিসি বিল্ড দিয়ে বেশ স্বাচ্ছন্দেই ১০৮০ পিক্সেল রেজুলেশনে হাই/আল্ট্রা প্রিসেটে বর্তমান সময়ের সকল মডার্ন গেমগুলো খেলতে পারবেন এবং মাল্টিটাস্কিং, টুকটাক গ্রাফিক্স ও ভিডিও এডিটিং অনায়াসে করা যাবে।

 

AMD RYZEN 5 3400G

প্রসেসর (Processor) – গেমিং পিসি বিল্ড গাইড ২০২১

আজকের এই বাজেট গেমিং পিসি বিল্ডে আমরা প্রসেসর হিসেবে সিলেক্ট করেছি AMD RYZEN 5 3400G। এএমডির এই প্রসেসর সেকেন্ড জেনারেশনের জেন প্লাস আর্কিটেকচারের উপর বেস করে গ্রাফিক্স সহ তৈরি করা হয়েছে। এই প্রসেসরে আছে Radeon RX Vega 11 Graphics এবং ৪টি কোর ৮টি থ্রেড অর্থাৎ মাল্টিটাস্কিং, গ্রাফিক্স ও ভিডিও এডিটিং অনায়াসে করা যাবে, এর বেইজ ক্লক 3.7 GHz যা সর্বোচ্চ 4.2 GHz গিগাহার্টজ পর্যন্ত বুস্ট করা যাবে এতে আরও রয়েছে 2MB L2 এবং 4MB L3 ক্যাশ মেমোরি। তাছাড়া এর TDP (thermal design power) 65W এবং এই প্রসেসরে দুইটি মেমোরি চ্যানেল দেওয়া হয়েছে তাই 2933MHz এর DDR4 মেমোরি ব্যাবহার করা যাবে। এর বর্তমান মূল্য ১৩ হাজার ৪০০ টাকা এই বাজেটের মধ্যে এএমডির বেস্ট প্রসেসর এটি।

Processor Specification

  • Model – Ryzen 5 3400G
  • Base Frequency – 3.7GHz
  • Maximum Turbo Frequency – 4.2GHz
  • Cache Total L2 Cache: 2MB
  • Total L3 Cache: 4MB
  • Cores 4 Threads 8
  • Default TDP 65W
  • Maximum Speed 2933MHz
  • Type DDR4  Max Number of Channels 2
  • Processor Graphics Radeon RX Vega 11 Graphics
  • Base Frequency 1400 MHz Core Count 11

ASROCK B450M STEEL LEGEND

মাদারবোর্ড (Motherboard) – গেমিং পিসি বিল্ড গাইড ২০২১

আজকের এই বাজেট গেমিং পিসি বিল্ডে আমরা মাদারবোর্ড হিসেবে সিলেক্ট করেছি ASROCK B450M STEEL LEGEND । মাদারবোর্ডটিতে রয়েছে এএমডির AM4 সকেট যাতে সাপোর্ট করবে  রাইজেন ২০০০,৩০০০ এবং ৫০০০ সিরিজের সকল ডেস্কটপ প্রসেসর। এছাড়া মাদারবোর্ডটিতে থাকছে ৩৫৩৩+ মেগাহার্টজ বাস স্পীডের ৩২ গিগাবাইট পর্যন্ত ডুয়াল চ্যানেল DDR4 র‌্যাম ব্যবহারের সুবিধা, এম.২ NVMe স্লট, ইউএসবি ৩.১ পোর্ট ইত্যাদি তো থাকছেই। এর বর্তমান দাম ১০,০০০হাজার টাকা।

Motherboard Specification

  • Supports AMD AM4 Socket Ryzen™ 2000, 3000 and 5000 Series Desktop Processors
  • Supports DDR4 3533+ (OC)
  • 1 PCIe 3.0 x16, 1 PCIe 2.0 x16, 1 PCIe 2.0 x1
  • AMD Quad CrossFireX™
  • Graphics Output: DisplayPort, HDMI
  • 7.1 CH HD Audio (Realtek ALC892/897 Audio Codec)
  • 4 SATA3, 1 Ultra M.2 (PCIe Gen3 x4), 1 M.2 (SATA3)
  • 2 USB 3.1 Gen2 (Rear Type-A+C)
  • 6 USB 3.1 Gen1 (2 Front, 4 Rear)
  • Realtek Gigabit LAN

Corsair Vengeance RGB PRO 16GB

র‌্যাম (Ram) – গেমিং পিসি বিল্ড গাইড ২০২১

বিল্ডটিতে র‌্যাম হিসেবে আমরা বেছে নিয়েছি আরিজিবি লাইট যুক্ত Corsair Vengeance RGB PRO DDR4 8GB 3200Mhz।  করসেয়ার ভেঞ্জেন্স আরজিবি প্রো ৮ জিবি+ ৮ জিবি করে দুইটা স্টিক মোট ১৬ জিবি। এর বাস স্পীড ৩২০০ মেগাহার্টজ। র‌্যামটির ১ টি স্টিকের  দাম ৪ হাজার টাকা মাত্র। বাজেট বাঁচাতে চাইলে এর লাইট ছাড়া LPX version কিনতে পারেন। সেক্ষেত্রে আপনার ২ টি স্টিকের দাম পরবে ৭০০০ টাকা মাত্র।

Corsair Vengeance LPX 8GB 3200MHz DDR4 Desktop RAM

Ram Specifications

  • Capacity 16GB(2 x 8GB)
  • Memory Type DDR4
  • Bus-Speed 3200Mhz
  • Memory Platform Desktop
  • Single/Dual sticks Dual
  • Number-of-Pin 288 Pin
  • Latency 16-20-20-38
  • Voltage 1.35V
  • Heat sink type Aluminum Heatsink
  • RGB Type Yes

CORSAIR 510 240GB NVME M.2 SSD

স্টোরেজ (Storage) – গেমিং পিসি বিল্ড গাইড ২০২১

আমরা এই বিল্ডটিতে স্টোরেজ হিসেবে সিলেক্ট করেছি CORSAIR 510 240GB NVME M.2 SSD । পারফরম্যান্সের দিক এবং বাজেট বিবেচনায় ২৪০ জিবি সিলেক্ট করেছি তবে আপনার যদি স্টোরেজ বেশি  প্রয়োজন হয় তাহলে এক্সট্রা হার্ডডিস্ক ব্যাবহার করতে পারেন সে ক্ষেত্রে বাজেট আরও একটু বাড়াতে হবে। এই বাজেটের মধ্যে থাকা খুবই ভালো একটি এসএসডি ড্রাইভ এর দাম পড়বে ৪ হাজার ৮০০ টাকা।

Storage Specifications

  • Supported Platforms: Intel® 100, 200, X99, X299 Chipsets, AMD Socket AM4 Platform
  • Endurance: 400 TBW
  • MTBF: 1,800,000 Hours
  • Encryption: AES 256-bit Encryption
  • Capacity: 240 GB
  • SSD Operating Temperature: 0°C to +70°C
  • SSD Interface: PCIe Gen 3.0 x4
  • SSD Max Sequential Read CDM: Up to 3,100MB/s
  • SSD Max Sequential Write CDM: Up to 1,050MB/s
  • Max Random Write QD32 IOMeter: Up to 240K IOPS
  • Max Random Read QD32 IOMeter: Up to 180K IOPS
  • Form Factor: M.2 2280
  • Dimension: 80mm x 22mm x 3mm

Thermaltake Litepower 550W

পাওয়ার সাপ্লাই (PSU) – গেমিং পিসি বিল্ড গাইড ২০২১

বিল্ডটিতে পাওয়ার সাপ্লাই হিসেবে আমরা সিলেক্ট করেছি Thermaltake Litepower 550W । এটি ৫৫০ ওয়াট আউটপুট দিতে সক্ষম, যা এই সিস্টেমের জন্য যথেষ্ট, পাওয়ার সাপ্লাইটির দাম ৪ হাজার টাকা। একটা কথা না বললেই নয় যেটা হলো বাজারে এই মুহূর্তে PSU বা পাওয়ার সাপ্লাই এর বেশ সংকট তাই হয়তো চাহিদা অনুযায়ী পাওয়ার সাপ্লাই না ও পেতে পারেন। তবে যেটাই নেন ভালো নেয়ার চেষ্টা করবেন কারন আপনার সকল কম্পোনেন্টে পাওয়ার সাপ্লাই এর উপর নির্ভরশীল।

Gamdias TALOS E1

কেসিং (Casing) – গেমিং পিসি বিল্ড গাইড ২০২১

আমরা বিল্ডটিতে কেসিং হিসেবে সিলেক্ট করেছি Gamdias TALOS E1 কেসিংটির দাম ৪ হাজার ৩০০ টাকা। তবে এটা যদি  না পাওয়া যায় আপনি চাইলে আপনার পছন্দের অন্য যেকোন কেসিংও নিতে পারেন টেম্পারেড গ্লাস এয়ার ফ্লো ব্যবস্থা সব কিছু  মিলিয়ে বাজেট বিবেচনায় এটাই বেস্ট বলা চলে।

 

আরো পড়ুনঃ আগামী বছর থেকেই বন্ধ হতে পারে অবৈধ মোবাইল ফোন? – আপনার যা জানা জরুরি

Fantech Turbine FC-124 RGB Dual Side Illuminated Casing Cooling Fan

কেসিং ফ্যান (Casing Fan) – গেমিং পিসি বিল্ড গাইড ২০২১

আমরা বিল্ডটিতে কেসিং ফ্যান হিসেবে সিলেক্ট করেছি  FANTECH FC124 TURBINE RGB মোট তিনটি ১২৪ মিলি আরজিবি ফ্যান সিলেক্ট করেছি যা আপনার কম্পিউটারের সৌন্দর্য বৃদ্ধি করবে। কেসিং ফ্যান গুলির দাম এক একটা ৭০০ টাকা মোট ২১০০ টাকা ।

 

আমাদের এই বিল্ডের সকল কম্পোনেন্টের দাম নিচে তুলে ধরা হলো:

প্রসেসর (Processor) – ১৩,৪০০ টাকা

মাদারবোর্ড (Motherboard) – ১০,০০০ টাকা

র‌্যাম (Ram) – ৮,০০০ টাকা

স্টোরেজ (Storage) – ৪,৮০০ টাকা

পাওয়ার সাপ্লাই (PSU) – ৪,০০০ টাকা

কেসিং (Casing) – ৪,৩০০ টাকা

কেসিং (Casing) – ২,১০০ টাকা

মোট খরচ – ৪৬,৬০০ টাকা

 

বিঃদ্রঃ আর্টিকেলে উল্লেখিত আমাদের এই বিল্ডের সকল কম্পোনেন্টের দাম স্টোর বা আবস্থান ভেদে কমবেশি হতে পারে, অবশ্যই কেনার আগে ভালোভাবে খোজ খবর নিয়ে কিনবেন।

তো এই ছিল আজকের ৪৫ হাজার টাকার গেমিং পিসি বায়িং গাইড। আশা করি পোস্টটি ভালো লেগেছে কেমন লেগেছে তা অবশ্যই কমেন্ট করে জানতে ভুলবেন না। এই রকম আরও পোস্ট পেতে চাইলে আমাদের সাথেই থাকুন। আমাদের পোস্ট গুলো যদি আপনাদের ভালো লেগে থাকে তাহলে, অনুগ্রহ করে আমাদের পোস্ট গুলি সোশ্যাল মিডিয়াতে শেয়ার করবেন।

>>> আমাদের ফেসবুক পেইজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন বিডি টেক পয়েন্ট (BD Tech Point) এর সাথে। যুক্ত হতে – এখানে ক্লিক করুন

মানুষ মাত্রই ভুল করে আমরা কেউ আসলে ভুলের উর্ধে নই। যদি কোনো ভুল ত্রুটি হয়ে থাকে তাহলে অবশ্যই ক্ষমা সন্দুর দৃষ্টিতে দেখবেন। ধন্যবাদ আপনাকে আর্টিকেলটি পরার জন্য ভালো থাকবেন সুস্থ থাকবেন বিদায় নিচ্ছি আজকের মত আল্লাহ্‌ হাফেজ।

One Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.

x